| |

প্রধানমন্ত্রী কাল নেত্রকোনা আসছেন ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের প্রত্যাশা

আপডেটঃ 8:33 pm | May 17, 2017

Ad

শাহ্জাদা আকন্দ, নেত্রকোনা প্রতিনিধি ঃকাল   বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা অকাল বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ নেত্রকোনা জেলার হাওর উপজেলা খালিয়াজুরী পরিদর্শনে আসছেন।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার সকাল ৯.৪০মিনিটে খালিয়াজুরী উপজেলার হাওর মালেক সিটিতে নির্মিত হেলিপ্যাডে অবতরণ করার পর বন্যা দূর্গত এলাকা পরিদর্শন শেষে নগর ইউনিয়নের বল্লভপুর গ্রামে অকাল বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করবেন। পরে খালিয়াজুরী কলেজ মাঠে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য রাখবেন।
প্রধানমন্ত্রীর সফরকে সুন্দর ও সার্থক করে তুলতে স্থানীয় প্রশাসন, এলাকাবাসী ও দলীয় নেতাকর্মীদের সহযোগিতায় খালিয়াজুরী উপজেলা সদরকে নতুন ভাবে সাজিয়ে তোলার চেষ্টা চালিয়েছেন।

খালিয়াজুরী উপজেলা পরিষদ, ডাক বাংলো, হাসপাতালকে সুসজ্জিত করণের পাশাপাশি হাওর মালেক সিটিতে হেলিপ্যাড নির্মাণ এবং কলেজ মাঠে তৈরী করা হয়েছে বিশাল প্যান্ডেল।

নগর ইউনিয়নের বল্লভপুর গ্রামসহ আশপাশের এলাকায় জরুরী ভিত্তিতে সাময়িকভাবে বিভিন্ন উন্নয়ন মূলক কাজ করা হয়েছে। চারদিকে সাজ সাজ রব দেখে নতুন করে আশার সঞ্চার হয়েছে ফসলহারা কৃষকদের মাঝে। তারা এখন তাকিয়ে আছেন প্রধানমন্ত্রীর দিকে। প্রধানমন্ত্রী তাদের জন্য কি করেন।
অতি বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ী ঢলের কারণে সৃষ্ট অকাল বন্যায় সারা বছরের একমাত্র ফসল হারিয়ে এতোদিন যারা হাহাকার ও বোবা কান্না করছিল  প্রধানমন্ত্রীর আগমনের খবর পেয়ে সেইসব ফসলহারা কৃষকরা নতুন করে আশায় বুক বাধঁছেন।

তাদের একটাই কথা, শুধু ত্রাণ নয়, ঘুরে দাড়ানোর সুযোগ সৃষ্টি করে দিতে হবে প্রধানমন্ত্রীকে। আর নয় প্রতিশ্রুতি, প্রধানমন্ত্রী হাওরাঞ্চলের মানুষের নানাবিধ সমস্যা এবং দুর্ভোগ, দুর্দশার চিত্র উপলব্ধি করে এর স্থায়ী সমাধান দেবে।
প্রধানমন্ত্রীর সফরকে ঘিরে হাওরবাসীর প্রত্যাশা বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধ ভেঙ্গে আর যাতে হাওরের ফসল তলিয়ে বিনষ্ট হয়ে যেতে না পারে, তার জন্য বিশেষজ্ঞদের মতামত নিয়ে স্থায়ী সমাধান খুঁজে বের করতে হবে।

পলি পড়ে ভরাট হয়ে যাওয়া নদী নালা খাল বিল দ্রুত খনন করে পানি প্রবাহ স্বাভাবিক রাখতে হবে। আগামী বোরো ফসল ঘরে উঠা না পর্যন্ত ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকদের প্রয়োজনীয় ত্রাণ বিতরণ অব্যাহত রাখার পাশাপাশি প্রতিটি ওয়ার্ড পর্যায়ে ওএমএসের ডিলার নিয়োগের মাধ্যমে প্রতিদিন খোলা বাজারে চাল বিক্রি অব্যাহত রাখা। মহাজন ও এনজিও ঋণের কিস্তি আদায় স্থগিত।

বীজ, সার, কীটনাশকসহ বিনামূল্যে কৃষি উপকরণ বিতরণ। ভিজিএফ তালিকা তৈরীতে ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মেম্বারগন কোন ধরনের উৎকোচ গ্রহণসহ দলীয় করণ, স্বজনপ্রীতি, স্বেচ্ছাচারিতা, ত্রাণ বিতরণে অনিয়ম, দুর্নীতি করছে কি-না প্রশাসনের পক্ষ থেকে তা সঠিক ভাবে তদারকি করা। দুর্যোগের সময় যারা জিনিসপত্রের দাম বাড়ানোর চেষ্টা করবে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা।
পুলিশ সুপার জয়দেব চৌধুরী বলেন, প্রধানমন্ত্রী আগমন উপলক্ষে ৫ স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। খালিয়াজুরী উপজেলার সর্বত্রই নিরাপওার চাদরে ঢেকে দেয়া হয়েছে।
জেলা প্রশাসক ড. মোঃ মুশফিকুর রহমান বলেন, প্রধানমন্ত্রীর আগমন উপলক্ষ্যে ইতিমধ্যে যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে।

ব্রেকিং নিউজঃ