| |

ময়মনসিংহে কলেজ ছাত্র শাকিল হত্যার ঘটনায় প্রধান আসামীসহ গ্রেফতার-৩

আপডেটঃ ৩:১১ অপরাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ০২, ২০১৬

Ad

মোঃ মেরাজ উদ্দিন বাপ্পিঃ ময়মনসিংহের শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম কলেজের  দ্বাদশ শ্রেনীর শিক্ষার্থী  মুহতাসিম বিল্লাহ  শাকিল হত্যার সাথে জড়িত প্রধান আসামীসহ তিনজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
সোমবার রাতে কিশোরগঞ্জের হোসেনপুর ও ময়মনসিংহের পাগলা থানায় অভিযান চালিয়ে এই তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা হলো প্রধান আসামী আসাদুজ্জামান পিয়াস, জামির হোসেন পিয়াম ওরফে (এল পিয়াস) ও সিফাত ইয়াসিন তুবা। এরা তিনজনই শহরের রয়েল মিডিয়া কলেজের দ্বাদশ শ্রেনীর শিক্ষার্থী।
মঙ্গলবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে কোতোয়ালি মডেল থানার সহকারী পুলিশ সুপার আব্দুর রশিদ স্থানীয় সাংবাদিকদের বিষয়টি জানান।
তিনি জানান, মেয়েদের উত্তক্ত্য করাকে কেন্দ্র করে সহপাঠীদের হাতে এই হত্যাকান্ড সংগঠিত হয়। এই হত্যাকান্ডে  সৈয়দ নজরুল কলেজ, রয়েল মিডিয়া কলেজ, নটরডেম কলেজ ও আনন্দ মোহন কলেজের ১৪জন শিক্ষার্থী অংশ নেয়। হত্যাকান্ডের একদিন পর (২৯ জানুয়ারী শুক্রবার) নিহত শাকিলের বাবা এমদাদুল হক বাদী এই তিনজনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত ১০/১২ জনের নামে কোতোয়ালী মডেল থানায় মামলা নং-১০৭ (১)১৬ একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। এরপর থেকেই ঘাতকরা পলাতক ছিল।

SAM_4686
এদিকে কোতোয়ালী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ কামরুল ইসলাম জানান, ঘটনার ৫দিন পর গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক আশরাফুল আলম রিপন গত সোমবার সন্ধ্যা রাতে কিশোরগঞ্জের হোসেনপুর ও ময়মনসিংহ জেলার সীমান্তবর্তী পুরাতন ব্রক্ষপুত্র নদের পাড়ের পাগলা থানার প্রত্যান্ত দুবাঁশিয়া গ্রাম থেকে কলেজ ছাত্র শাকিল হত্যার প্রধান আসামী আসাদুজ্জামান পিয়াস,জামিল হোসেন ওরফে (এল পিয়াস) ও তোবাকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃতরা শহরের রয়েল মিডিয়া কলেজের শিক্ষার্থী এবং নিহত শাকিলের বন্ধু বলে জানিয়েছে অফিসার ইনচার্জ কামরুল ইসলাম।
অপর দিকে নিহত শাকিলের গ্রামের বাড়ি জেলার ফুলবাড়িয়া উপজেলায় মঙ্গলবার সকালে খুনীদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবিতে ঘন্টা ব্যাপী মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করেছে।
উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) বিকেলে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম কলেজের দ্বাদশ শ্রেনীর শিক্ষার্থী মুহতাসিম বিল্লাহ শাকিল শহরের বন্ধুদের সাথে আড্ডা দিয়ে বাসায় ফেরার পথে কলেজ রোড এলাকায় রাস্তা পথরোধ করে তারই কয়েকজন সহপাঠী, সেখানে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে শাকিলকে এলোপাথারী ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায়। স্থানীয়রা গুরুতর আহতাবস্থায় উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সন্ধ্যা সাতটার দিকে তার মৃত্যু হয় ।