| |

ড. সামিউল আলম লিটন বিরুদ্ধে মিথ্যা সংবাদ পরিবেশন করায় “দৈনিক নয়াদিগন্ত” ও “দৈনিক মানবকন্ঠের” বিরুদ্ধে মামলা দায়ের

আপডেটঃ 10:10 pm | August 09, 2017

Ad

রুহুল আমিন ॥ দৈনিক নয়াদিগন্তের সম্পাদক আলমগীর মহিউদ্দিন, প্রকাশক শামছুল হুদা ও দৈনিক নয়াদিগন্তের ময়মনসিংহ প্রতিনিধি সাইফুল ইসলাম এবং দৈনিক মানবকন্ঠের সম্পাদক আনিস আলমগীর, প্রকাশক জাকারিয়া চৌধুরী,

 

নিজস্ব প্রতিবেদক হাবিব রহমান এর বিরুদ্ধে জেলা ময়মনসিংহের বিজ্ঞ সিনি: ম্যাজিস্ট্রেট ৪নং আমলী আদালতে দন্ডবিধি আইনের ৫০০/৫০১ ধারা মোতাবেক মামলা দায়ের করেছেন কৃষিবীদ লিমিটেড এর মহাব্যবস্থাপক ও এস আলম এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধীকারী কৃষিবীদ ড. সামিউল আলম লিটন।

 

মামলার আর্জিতে কৃষিবীদ ড. সামিউল আলম লিটন উলে¬খ করেন গত ৫/৮/২০১৭ইং তারিখে দৈনিক নয়াদিগন্ত পত্রিকায় “ময়মনসিংহ জেলা আওয়ামীলীগের প্রস্তাবিত কমিটি নিয়ে বিতর্ক কেন্দ্রের কাছে ৪ এমপির লিখিত অভিযোগ” এবং দৈনিক মানবকন্ঠ পত্রিকায় “এবার আওয়ামীলীগের পদ বানিজ্যের অভিযোগ” শিরোনামে এক যুগে তাহাদের পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ করে।

 

তিনি মামলায় উল্লেখ করেন, বিবাধীগন একদল ভুক্ত কুৎসা রটনাকারী, তথ্য সন্ত্রাসী, পর নিন্দাকারী, মানহানীকারী ও আইন অমান্যকারী লোক বটে।

 

তিনি মামলায় উল্লেখ করেন, আমি একজন সম্ভ্রান্ত বংশীয় বিশিষ্ট শিল্পপতি, ময়মনসিংহ চেম্বার অব কমার্স ইন্ডাষ্ট্রিজ লি: এর সদস্য, জাপান বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স, রাশিয়া বাংলাদেশ বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স এর সদস্য এবং বাংলাদেশ ইন্ডাস্টিজ এসোসিয়েশনের মেম্বার এবং উচ্চ মর্যাদা সম্পন্ন রাজনৈতিক ব্যাক্তিত্ব।

 

দীর্ঘদিন আমি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের রাজনীতির সাথে সক্রিয় ভাবে জড়িত। ইতিমধ্যে ছাত্র জীবনে শেরে বাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের ভি.পি এবং ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক, আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য হিসাবে নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করেন।

 

বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কেন্দ্রীয় উপ কমিটির সহ সম্পাদক এবং ২০১৪ সনের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য ছিলেন।

 

তিনি আরও মনে করেন বিবাদীগন পরস্পরের যোগসাযশে সিন্ডিকেশনের মাধ্যমে কুচক্রী মহলের কু-উদ্দেশ্য চরিতার্থ করার মানুষে সমাজের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গের বিরুদ্ধে মানহানিকর অপমানজনক ও কুৎসারটনা করে তাহাদের সম্পাদিত ও প্রকাশিত দৈনিক পত্রিকা সমূহে প্রচার ও প্রকাশ করিয়া মানহানিকর কাজে লিপ্ত রহিয়াছে।

 

তিনি যথেষ্ট সুনামের সাথে বাংলাদেশ সহ দেশে বিদেশে ব্যবসা বানিজ্য পরিচালনা করিয়া আসিতেছেন। বিবাদীগনের এহনো জঘন্য কার্যকলাপে বাদীর সামাজিক রাজনৈতিক ও ব্যবসায়ীক মর্যাদা ক্ষুন্ন হয়েছে বিধায় উল্লেখিত বিবাদীগনের বিরুদ্ধে দন্ডনীয় ফৌজদারী মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন মামলা পরিচালনাকারী এড: পীযুষ কান্তি সরকার।

 

এ সয়ম তাকে মামলার কাজে সহযোগিতা করেন এড: মোয়াজ্জেম হোসেন বাবুল, এড: শফিকুল ইসলাম, এড: মোজাক্কের হোসেন প্রমুখ।

ব্রেকিং নিউজঃ