| |

গত ৫বছর থেকে অদ্যাবধি সাবেক কমিটি কোন হিসাব দেয়নি –মো: মোহসিন

আপডেটঃ 9:23 am | October 12, 2017

Ad

প্রদীপ ভৌমিক ॥ ময়মনসিংহ জেলা ক্রীড়া সংস্থার আগামী নির্বাচন ও গত কমিটির আয় ব্যায়ের হিসাব নিয়ে এক আলাপচারিতায় দৈনিক আলোকিত ময়মনসিংহ পত্রিকার সম্পাদক প্রদীপ ভৌমিকের সাথে ময়মনসিংহ জেলা ক্রীড়া সংস্থার আহবায়ক কমিটির সদস্য সচিব ও অতি: জেলা প্রশাসক মো: মোহসীন এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, এ বছরের নভেম্বরের শেষ সপ্তাহে জেলা ক্রীড়া সংস্থার নতুন কমিটি গঠনের জন্য নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

 

নির্বাচনের পক্রিয়া সম্বন্ধে জিঞ্জেস করা হলে তিনি বলেন, বৈধ ক্লাব গুলির প্রেরিত প্রতিনিধি ও জেলা প্রশাসক কর্তৃক ক্ষমতা প্রাপ্ত নির্দিষ্ট ব্যাক্তিরা ভোট অথবা ঐক্যমতের ভিত্তিতে গঠন করবেন নতুন কার্যকরী কমিটি। কোন একক ব্যাক্তি বা গোষ্ঠিদ্বারা নিয়ন্ত্রিত হয়ে নতুন কমিটি গঠনের সম্বাবনা এবার একেবারে নেই বললেই চলে।

 

গত কমিটি গঠনের প্রক্রিয়া সম্বন্ধে প্রদীপ ভৌমিক প্রশ্ন করলে তিনি বলেন, অতীত এবং বর্তমান এক নয়। সাম্প্রতিক সময়ে অনুষ্ঠিত জেলা ফুটবল এসোসিয়েশনের নির্বাচন তার প্রমান। মো: মোহসিন বলেন, ক্লাব প্রতিনিধিদের নামের অধিকাংশ তালিকা জেলা আহবায়ক কমিটির নিকট এসে পৌছেছে। ২/১টি ক্লাবের প্রতিনিধিদের নিয়ে কিছু আপত্তি আছে।

 

অচিরেই তা নিরসন হবে। প্রদীপ ভৌমিকের এক প্রশ্নের জবাবে জেলা ক্রীড়া সংস্থার সদস্য মো: মোহসিন বলেন, বিগত ৫ বছর যাবৎ সাবেক ময়মনসিংহ ক্রীড়া সংস্থার সাধারন সম্পাদক ও কর্মকর্তারা কোন হিসাব প্রদান করে নাই। এমনকি বিগত ৫ বছরের মধ্যে এক মাসেরও কোন হিসাব পাওয়া যায় নাই।

 

ময়মনসিংহ জেলা ক্রীড়া সংস্থার বর্তমান আহবায়ক কমিটি, সমবায়ের ১জন কর্মকর্তা ও ময়মনসিংহ জেলার ১জন হিসাব রক্ষককে দিয়ে সরকার কর্তৃক প্রাপ্ত অনুদান ও অন্যান্য জ্ঞাত টাকার হিসাব করার চেষ্টা করছেন।

 

হিসাব প্রদানের মেয়াদ উত্তীর্ন হয়ে গেছে এই প্রশ্নের জবাবে জেলা ক্রীড়া সংস্থার সদস্য সচিব বলেন, সাবেক ক্রীড়া সংস্থার সাধারন সম্পাদক ১টি হিসাব নাকি প্রদানের জন্য প্রস্তুত করছেন যা এখনও আমাদের হাতে এসে পৌছেনি।

 

প্রদীপ ভৌমিক প্রশ্ন করেন যদি কোন সাবেক জেলা ক্রীড়া সংস্থার কর্মকর্তার বিরুদ্ধে আর্থিক অনিয়ম ও দুর্নীতি প্রমানিত হয় তা হলে সেই অভিযুক্ত ব্যাক্তি আসন্ন ময়মনসিংহ জেলা ক্রীড়া সংস্থার নির্বাচনে অংশ গ্রহন করতে পারবে কিনা বা তার বিরুদ্ধে আইনী ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে জেলা ক্রীড়া সংস্থার আহবায়ক কমিটির সদস্য সচিব বলেন,

 

ফৌজধারী কার্যক্রম হলে আমরা সাথে সাথে ব্যবস্থা নিতে পারবো কিন্তু আর্থিক অনিয়ম ও দুর্নীতির ব্যাপারে জাতীয় ক্রীড়া সংস্থা বরাবরে জানান হবে। জাতীয় ক্রীড়া সংস্থার সিদ্ধান্তই হবে চুড়ান্ত সিদ্ধান্ত।

 

জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে যে প্রতিনিধি নির্বাচনে নিয়োগ দেয়া হয় সে ব্যাপারে সিদ্ধান্ত হয়েছে কিনা জানতে চাইলে সদস্য সচিব বলেন, সেটা জেলা প্রশাসকের ব্যাপার, তবে এ ব্যপারে আমার কাছে কোন তথ্য নেই।

 

তিনি বলেন, মাননীয় জেলা প্রশাসক হয়ত শিঘ্রই এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিবেন। সর্বশেষ জেলা ক্রীড়া সংস্থার আহবায়ক কমিটির সদস্য সচিব মো: মোহসিন দৃঢ়তার সহিত বলেন, আগামী জেলা ক্রীড়া সংস্থার নির্বাচন অবশ্যই আইন অনুযায়ী সচ্ছতার সহিত অনুষ্ঠিত হবে।

 

এ ব্যাপারে কোন ছাড় দেয়া হবে না। দৈনিক আলোকিত ময়মনসিংহ পত্রিকার সম্পাদক যিনি নিজেও একজন ক্লাব প্রতিনিধি তিনি জেলা প্রশাসক মো: খলিলুর রহমান ও সদস্য সচিব মো: মোহসিনের উপর পুর্ন আস্তা রেখে বলেন,

 

এ বারের জেলা ক্রীড়া সংস্থার নির্বাচন হবে সর্বপ্রকার অনিয়মের উর্দ্ধে আইনানুগ ও নিয়ম মাফিক একটি সুষ্ঠু নির্বাচন। যা ময়মনসিংহে ক্রীড়ামোদীদের মাঝে চির স্মরনীয় হয়ে থাকবে।

ব্রেকিং নিউজঃ