| |

ভাবখালীতে জনপ্রিয়তার শীর্ষে আনারস প্রতীকের প্রার্থী রমজান ষড়যন্ত্রের শিকার ॥ এলাকায় প্রতিবাদের ঝড়

আপডেটঃ ১২:২২ পূর্বাহ্ণ | জুলাই ০৯, ২০১৯

Ad

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ময়মনসিংহ সদর উপজেলা ১২নং ভাবখালী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থীর সমর্থকরা তাদের নিজেদের কেন্দ্র নিজেরা ভাংচুর করে আনরস প্রতীকের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী, সদ্য সাবেক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান রমজান আলী ও তার কর্মী সমর্থকদের ঘাড়ে দোষ চাপানোর অভিযোগ উঠেছে। যাদের নামে অভিযোগ করা হয়েছে তাদের মাঝে একজন গত ১তারিখ থেকেই ঢাকার গাজীপুরায় অবস্থান করছে। এই ঘটনায় স্থানীয়দের মাঝে তীব্র সমালোচনার ঝড় উঠেছে। এলাকাবাসী এ ঘটনায় বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ জানিয়েছে। গতকাল ব্কিালে এলাকাবাসী ভাবখালী রাস্তায় প্রতিবাদ জানায়। এ সময় বীরমুক্তিযোদ্ধা হারুন অর রশিদ, মাহবুবুর রহমান মানিক, আ: মতিন, মমিন, খোকন মিয়া, রফিকুল ইসলাম, আ: রাজ্জাক, সোহেল মিয়া, এড. মোখলেছুর রহমান, এমদাদুল হক, আলম, শাহিনুর রহমান, সোহেল, উজ্জল মিয়া, আতিকুল ইসলাম, মানিক মিয়া, ছামাদ মিয়া, শাহাব উদ্দিন, সিরাজুল ইসলাম সহ শতাদিক গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। স্থানীয় সুত্র জানায়, গত ৭ই জুলাই রাত প্রায় ১১,৩০মিনিটে ইউনিয়নের ভাবখালী সিডষ্টোর বাগের বাড়ীতে তৈরীকৃত নৌকার প্রচার কেন্দ্রে পরিকল্পিত ভাবে হামলা চালায় তাদের নিজের কর্মী-সমর্থকরা ভাংচুর চালায়। হামলাকারীরা মটরবাইক যোগে চুরখাই থেকে এসে ঘটনা ঘটিয়ে প্রশাসনের বিরুদ্ধে বিভিন্ন শ্লোগান দিতে দিতে দ্রুত চুড়খাইয়ের দিকে চলে যায় বলে জানান স্থানীয়রা। পরে উক্ত ঘটনায় স্বতন্ত্র প্রার্থী ও তার কর্মী বুলবুল (বুলু),মানিক,কাঞ্চন, সুহেল,মাসুদ,মমিনসহ বেশ কয়েজনের নামে কেন্দ্র ভাংচুরের অভিযোগ করা হয়েছে। অথচ এদের মাঝে বুলবুল (বুলু) গত ১লা জুলাই থেকে আই মিত্র ট্রেনিং সেন্টার গাজীপুরা ২৭টিএম এস এস এ অবস্থান করছে। প্রতিপক্ষকে ফাসানোর চক্রান্তে নৌকা সমর্থদের এহেন মিথ্যাচারে ভাবখালী এলাকায় তীব্র সমালোচনা ও প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে। অনেকেই জানান ভাবখালী ইউনিয়নে আসন্ন নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থীদের মধ্যে একজন মেধাবী, শিক্ষিত, নিরলস ও সামাজিক হিসেবে আনারস প্রতীকের প্রার্থী রমজান আলীর জনপ্রিয়তা শীর্ষে রয়েছেন। ভাবখালী ইউনিয়ন পরিষদ ভবন নির্মাণ,সমাজিক ভাবে তার মূল্যায়ন, সমাজসেবা ও মানুষের সাথে সদালাপী হওয়ায় নির্বাচনে তার ব্যাপক জনপ্রিয়তা ও ভোট ব্যাংক রয়েছে। একজন পরিশ্রমী ও মিষ্টভাষী ব্যক্তি হিসাবে রমজান আলীর প্রতিকের আলোচনা ও সমর্থন সব এলাকায়ই ব্যপক। আগামী ১১ই জুলাই আনরসের বিজয়ের সম্ভাবনা শতভাগ রয়েছে বিধায় তার জনপ্রিয়তায় ঈর্ষান্নিত হয়ে তাকে চক্রান্ত করে নির্বাচনী মাঠ থেকে সরানোর লক্ষেই নৌকা সমর্থকরা নিজেদের কেন্দ্র নিজেরা ভাংচুর করে মিথ্যাচার করেছে বলে স্থানীয়দের মাঝে আলোচনা চলছে। স্থানীয়রা সুষ্ট ও নিরপেক্ষ তদন্তের মাধ্যমে ঘটনার বিচার দাবী করেন অন্যথায় এই ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোব্ধ কর্মসুচীসহ বিভিন্ন প্রতিবাদ কর্মসুচীর ঘোষণা দেন।

ব্রেকিং নিউজঃ