| |

চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কড়া হুশিয়ারি

আপডেটঃ ১১:৩৩ পূর্বাহ্ণ | আগস্ট ০৫, ২০১৯

Ad

রাজধানীর কারওয়ান বাজারে চাঁদাবাজির সঙ্গে জড়িতদের হুশিয়ার করে দিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, যারা চাঁদাবাজি করবেন তারা কারওয়ান বাজার থেকে চলে যাবেন। কোনো চাঁদাবাজ কারওয়ান বাজারে থাকতে পারবে না। কারও বিরুদ্ধে এ ধরনের কোনো অভিযোগ বরদাশত করা হবে না।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমরা চাঁদাবাজি বন্ধ করে দিয়েছি। তার পরও কিছু কিছু কানে আসছে। আমি পরিষ্কার বলে দিচ্ছি, যারা চাঁদাবাজি করবেন তারা কারওয়ান বাজার ছেড়ে চলে যাবেন। ১০ বছর আগে যে পরিস্থিতি ছিল তা আমরা হতে দেব না। আমরা এখানে কোনো ধরনের মাস্তানি, চাঁদাবাজি হতে দেব না।

রোববার সকালে কারওয়ান বাজারে নিষিদ্ধ ঘোষিত পলিথিনবিরোধী সচেতনতামূলক সভা ও পরিচ্ছন্নতা অভিযানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। পলিথিন বন্ধের আহ্বান জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, পলিথিন বন্ধ করার জন্য ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, অবৈধ ব্যবসা ও চাঁদাবাজির কারণে প্রতি মাসে কেউ না কেউ খুন হয়েছে। আপনারা নিশ্চয়ই ভুলে যাননি যে, আমাদের সরকার ক্ষমতায় আসার পর আমরা এই হত্যা বন্ধ করেছি। আমরা চাঁদাবাজি বন্ধ করেছি। তারপরও কিছু কিছু আমাদের কানে আসে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, এখন আগের চেয়ে ভালো অবস্থায় আছে কারওয়ান বাজার। ভালো অবস্থা ধরে রাখতে আমরা সর্বাÍক চেষ্টা চালিয়ে যাব। এখানে কোনো ধরনের মাস্তানি ও চাঁদাবাজি হতে দেব না।

মন্ত্রী বলেন, ঈদ উপলক্ষে আমরা সবাই সজাগ থাকব। আর ব্যবসায়ীদের প্রতি আহ্বান রাখছি, কারওয়ান বাজারে যেন ভালো পরিবেশ বজায় থাকে। যখনই কোনো চাঁদাবাজি হবে আপনারা সঙ্গে সঙ্গে পুলিশকে জানাবেন। তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নেয়া হবে। যে চাঁদাবাজি করবে তার বিরুদ্ধে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে। মন্ত্রী বলেন, এই কথাটা বলার একটি কারণ আছে। গত দু’দিনে আমার বাসায় নানা ধরনের অভিযোগ আসছে। সেই অভিযোগের সূত্র ধরেই আমি এটা বলছি। সাংবাদিক নিখোঁজের বিষয়ে আসাদুজ্জামান খান বলেন, মোহনা টেলিভিশনের একজন সাংবাদিক নিখোঁজ হয়েছেন। আমি সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের সঙ্গে কথা বলেছি। আমরা আশা করি, তাকে উদ্ধার করতে পারব।

ব্রেকিং নিউজঃ