| |

সিরিয়ার হাসপাতালে বিমান হামলা: নিহত ২১

আপডেটঃ 9:43 pm | February 15, 2016

Ad

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলের একটি স্কুল এবং দুটি হাসপাতালে পৃথক বিমান এবং রকেট হামলায় কমপক্ষে ২১ জন নিহত হয়েছে। স্থানগুলোতে কয়েক মিনিটের মধ্যে অন্তত দুই দফায় মোট চারবার বিমান হামলা চালানো হয়েছে। হামলাগুলো রুশ বিমান থেকে চালানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

আল জাজিরা জানিয়েছে, হামলাগুলোর মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ হামলা হয়েছে বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত আলেপ্পো প্রদেশের আজান শহরের একটি হাসপাতালে। হামলায় কমপক্ষে ১৪ জন নিহত এবং ৩০ জন আহত হয়েছে। বিমান ও রকেট হামলায় হাসপাতালটির একটি অংশ সম্পূর্ণরূপে ধ্বসে পড়েছে বলে জানিয়েছে স্থানীয় গণমাধ্যমগুলো।

আঞ্চলিক গণমাধ্যম দপ্তরের প্রধান আবু থর আল হালাবি আল জাজিরাকে জানান, মানবিক সহায়তা প্রদানের জন্য নির্ধারিত মূল রাস্তাসহ শহরের প্রধান মহাসড়কটি এই হামলায় বিদ্ধস্ত হয়। রুশ যুদ্ধবিমান থেকে হামলাটি চালানো হয়েছে বলেও জানান তিনি।

এদিকে মানবাধিকার সংগঠন ‘ডক্টরস উইদাউট বর্ডারস’ জানিয়েছে, দেশটির ইদলিব প্রদেশের ‘মেডিসিন সেন্স অব সিরিয়া’র (এমএসএফ) চিকিৎসকদের পরিচালিত একটি হাসপাতালেও হামলা চালিয়েছে রুশ বিমান বাহিনী। এতে সেখানে এক শিশুসহ কমপক্ষে নয় জন নিহত হয়েছে।

এমএসএফ’র এক চিকিৎসক নাম না প্রকাশের শর্তে বলেন, এখন পর্যন্ত প্রায় ১৩ জন আহত হয়েছে। হামলায় হাসপাতালটির অনেক ক্ষতি সাধিত হয়েছে বলেও জানান তিনি। ইতিমধ্যে হাসপাতালের ছয়টি ফ্লোরের ধ্বংসস্তুপ সরানো হয়েছে। হাসপাতালে কোন বিদ্রোহী গোষ্ঠির কোনো সদস্য ছিল না । গত এক বছর ধরে এখান থেকে রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিয়া হচ্ছিল।

এমএসএফ’র প্রধান কর্মকর্তা মেসিমিলিয়ানো বলেন, ‘এই হামলা একটি স্বাস্থ্যকাঠামোর ওপর ইচ্ছাকৃত হামলা। আমরা এ ধরনের হামলার তীব্র নিন্দা জানাই।’ হাসপাতালটিতে হামলার ফলে ৪০ হাজার লোক চিকিৎসাসেবা থেকে বঞ্চিত হলো বলেও জানা মেসিমিলিয়ানো।

ব্রেকিং নিউজঃ