| |

তৃণমূলের কর্মীরা একটু ভালোবাসা আর সন্মান চায়, আর কিছু না- প্রধানমন্ত্রীকে হারুনুর রশীদ

আপডেটঃ 10:15 pm | November 25, 2019

Ad

যুবলীগের গুটিকয়েক নেতার রাতারাতি বড়লোক হওয়ার স্বপ্নের কারণে সংগঠনটির ওপর অ’পবাদ এসেছে বলে মনে করেন সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশীদ।

শনিবার রাজধানীর ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আওয়ামী যুবলীগের ৭ম জাতীয় কংগ্রেসে সাংগঠনিক রিপোর্ট পেশকালে তিনি এ কথা বলেন।

হারুনুর রশীদ বলেন, গুটিকয়েক লোকের অতি লোভের কারণে, রাতারাতি বড়লোক হওয়ার দুঃস্বপ্নের কারণে আজ আমাদের এই দশা।

লোভ-লা’লসা ভর করেছে আমাদের মতো কিছু লোকের ওপর। আমরা যারা রাজনীতি করি তারা দেশের শ্রেষ্ঠ সন্তান। আমরা মানুষের জন্য কাজ করি, আমরা পুলিশের পি’টুনি খাই, আমরা জেলখানায় যাই, আমরা পুলিশের পি’টুনি খাই জেলে নির্যা’তিত হই- যোগ করেন যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক।

যুবলীগের তৃণমূলের নেতাকর্মীদের প্রশংসা করে তিনি বলেন, আমাদের যারা সাধারণ কর্মী তারা খুবই ভালো মানুষ, তাদের কোনো লোভ-লা’লসা নেই। আমার সংগঠনের তৃণমূলের কর্মীদের কোনো লোভ-লা’লসা নেই। তারা নেত্রীর আদর্শ বাস্তবায়নের জন্য কাজ করেন।

প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে হারুনুর রশীদ বলেন, আপনার নির্দেশ বাস্তবায়নের জন্য যুবলীগ নেতাকর্মীরা সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকার করতে প্রস্তুত। নূর হোসেন তা প্রমাণ করে গেছেন। আমাদের সেই কর্মীরা শুধু একটু ভালোবাসা চায়, একটু সম্মান চায়। এর বেশি তৃণমূলের কোনো দাবি নেই।

যুবলীগে নতুন নেতৃত্ব সংগঠনের হাজার হাজার কর্মীর প্র’ত্যাশা পূরণ করবে জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা বঙ্গবন্ধু এবং আপনার কাছ থেকে যা শিখেছি মনে করি আজকের এই কংগ্রেসের মধ্য দিয়ে নতুন যে নেতৃত্বে আসবে সেই নেতৃত্ব আমাদের রাজনীতি পথচলা এগিয়ে নেবে।

বর্তমান কমিটির বিদায়ের মধ্য দিয়ে যুবলীগের কা’লিমা দূর হবে মন্তব্য করে হারুনুর রশিদ বলেন, এ সংগঠনের যে কা’লিমা রয়েছে তা দূর হবে। আমি মনে করি আমাদের বিদায়ের মাধ্যমে সে কা’লিমা দূর হবে। নতুন নেতৃত্বের জন্য একটা নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হবে সে দিগন্ত হবে আলোর দিগন্ত।

আওয়ামী যুবলীগের সপ্তম কংগ্রেস প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক চয়ন ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনাপর্বে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের প্রমুখ।

ব্রেকিং নিউজঃ