| |

ময়মনসিংহের পপুলার প্রান্ত ও সায়েমসহ ৯ হাসপাতালকে ৩৭ লাখ টাকা জরিমানা

আপডেটঃ 11:44 am | January 29, 2020

Ad

স্টাফ রিপোর্টার : ময়মনসিংহে বিভিন্ন হাসপাতাল ক্লিনিকে অভিযান চালিয়েছে র‌্যাবের ভ্রাম্যমান আদালত। মঙ্গলবার দুপুরে শহরের চড়পাড়া এলাকায় সায়েম ডায়াগনোস্টিক ও হাসপাতালকে ৬ লাখ টাকা এবং শহরের ত্রিশাল বাসস্ট্যান্ড এলাকায় স্বদেশ হাসপাতাল(প্রা.) লিমিটেডকে ৬ লাখ টাকা করে মোট ১২ লাখ টাকা জরিমানা করেছে র‌্যাব-১৪ এর ভ্রাম্যমান আদালত। গতকাল সোমবারও শহরের ৭টি প্রতিষ্ঠানকে সাড়ে ২৫ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছিল। এর মধ্যে পপুলার ডায়াগনষ্টিক সেন্টারকে ৬লাখ, প্রান্ত স্পেশালাইজড হাসপাতালকে ৬লাখ, লিবার্টি হাসপাতালকে ৪লাখ ৫০হাজার, মৈত্রী নার্সিং হোমকে ৩ লাখ ৫০ হাজার, রেডিয়াম হাসপাতালকে ৩ লাখ, নিরাপদ ডায়াগনষ্টিক ও হাসপাতালকে ২ লাখ, মৈত্রী ডায়াগনষ্টিক সেন্টারকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছিল।

সূত্রমতে, মঙ্গলবার সায়েম হাসপাতালে গিয়ে বিভিন্ন অনিয়মের চিত্র চোখে পড়ে র‌্যাবের ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের চোখে। নির্ধারিত বেডের অতিরিক্ত রোগী ভর্তি, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা ঠিকঠাক না থাকা, মরিচা ধরা যন্ত্রপাতি দিয়ে অস্ত্রোপচার করা, অস্ত্রেপচার কক্ষে ধূলাবালি, অস্ত্রোপচার পরবর্তী কক্ষের বিছানা অপরিস্কার থাকা, মেয়াদোত্তীর্ণ সিরিঞ্জ ব্যবহার সহ বিভিন্ন অনিয়মের দায়ে এই জরিমানা করা হয়।

র‌্যাব-১৪ এর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আক্তারুজ্জামান এর নেতৃত্বে এ অভিযান পরিচালনাকালে র‌্যাব-১৪ এর কর্মকর্তা মেজর মো. শিবলী সাদিক এবং ময়মনসিংহ সিভিল সার্জন অফিসের মেডিকেল অফিসার ডা. তৌফিক হাসান উপস্থিত ছিলেন।

অভিযান চলাকালে ম্যাজিস্ট্রেট আক্তারুজ্জামান উপস্থিত সাংবাদিকদের জানান, বিভিন্ন পরীক্ষা নিরীক্ষার উপকরন মানসম্মত না থাকা, পরিস্কার পরিচ্ছন্নতায় গাফিলতি, ত্রুটিপূর্ণ বর্জ্য ব্যবস্থাপনা, অপারেশন থিয়েটারে অটোক্লেভ মেশিন না থাকা এবং ডিউটি ডাক্তার না থাকায় ভোক্তা অধিকার-২০০৯ আইনের ৫২ধারায় উক্ত প্রতিষ্ঠানগুলোকে জরিমানা করা হয়।

ব্রেকিং নিউজঃ