| |

ঢাকা থেকে জামালপুরে তিস্তা এক্সপ্রেস চলন্ত ট্রেনের কেবিনে আপত্তিকর অবস্থায় শিক্ষার্থীসহ কলেজের অধ্যক্ষ গ্রেপ্তার

আপডেটঃ ৮:১২ অপরাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ০৩, ২০২০

Ad

মোঃ রিয়াজুর রহমান লাভলু ঃ  জামালপুরে দেওয়ানগঞ্জ গামী তিস্তা এক্সপ্রেস চলন্ত ট্রেনের কেবিনে আপত্তিকর অবস্থায় আনন্দ মহন কলেজ পড়য়া এক শিক্ষার্থীসহ ইসলামপুর জে,জে,কে এম গার্লস হাইস্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ ও জামালপুর শহরের গেইট পাড় মধু মহল মিষ্টির দোকানের মালিক আব্দুল সালাম চৌধুরী ওরফে (মামুন) কে গ্রেপ্তার করেন দেওয়ানগঞ্জ রেলওয়ে জিআরপি পুলিশ। রবিবার দুপুরে তাদের দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। পুলিশ সূত্রে জানায়, ঢাকা থেকে জামালপুর- দেওয়ানগঞ্জগামী আন্তঃনগর তিস্তা এক্সপ্রেস ট্রেনের ঘ নাম্বার কোচের একটি কেবিন বুকিং করে আনন্দ মহন কলেজ পড়য়া এক শিক্ষার্থী (২৭) কে নিয়ে ভ্রমণ করছিলেন ৫০ বছর বয়সী ইসলামপুর জে,জে,কে এম গার্লস হাইস্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ। আন্তঃনগর তিস্তা এক্সপ্রেস ট্রেনটি মেলান্দহ স্টেশন অতিক্রম করার পর মেয়েসহ ট্রেনের ওই কেবিনটি ভেতর থেকে বন্ধ থাকায় যাত্রীদের সন্দেহ হয়। কেবিনের বাইরে থেকে ডাকাডাকির পরও দরজা না খোলায় ট্রেনে কর্তব্যরত জিআরপি পুলিশকে বিষয়টি জানায় যাত্রীরা। পরে জিআরপি পুলিশ ওই কেবিনে গিয়ে অধ্যক্ষকে ওই শিক্ষার্থীর সঙ্গে আপত্তিকর অবস্থায় গ্রেপ্তার করে। পরে তাদের দুজনকে গ্রেপ্তার করে দেওয়ানগঞ্জ রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়িতে নিয়ে যান। পরবর্তীতে গ্রেপ্তার শিক্ষার্থী ও কলেজে অধ্যক্ষসহ দুইজনকে আন্তঃনগর তিস্তা ট্রেনেই জামালপুর জিআরপি থানায় নিয়ে আসা হয়। জামালপুর রেলওয়ে থানা জিআরপি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তাপস চন্দ্র পন্ডিত ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, সেই ছাত্রী কোন রকম কোন অভিযোগ করেনি। তবে তারা দুইজনই অপরাধী তাই মামলা করা হয়েছে।

ব্রেকিং নিউজঃ