| |

বাকৃবি‘র অফিসার পরিষদ কার্যকরি কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠিত

আপডেটঃ 12:04 pm | March 02, 2020

Ad

ইব্রাহীম মুকুটঃ বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার পরিষদ কার্যকরি কমিটির অভিষেক ২০২০ গতকাল বা.কৃ.বি শিল্পাচার্য্য জয়নুল আবেদিন মিলনায়তনে সকাল সাড়ে ১০টায় অনুষ্ঠিত হয়েছে।সমিতির সাবেক সভাপতি ড.মোঃ আবুল কালাম আজাদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ অভিষেক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বা.কৃ.বি‘র পরিকল্পনা কমিশন ও সিন্ডিকেট সদস্য সিনিয়র সচিব একুশে পদক প্রাপ্ত কৃষি অর্থনীতিবিদ প্রফেসর ড.শামসুল আলম।

সমিতির প্রধান পৃষ্ঠপোষক বা.কৃ.বি ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. লুৎফুল হাসান, বিশেষ অতিথি ছিলেন বা.কৃৃ.বি প্রো-ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোঃ জসিম উদ্দিন খান,বা.কৃ.বি রেজিষ্টার (ভারপ্রাপ্ত) ছাইফুল ইসলাম,বা.কৃ.বি কোষাধ্যক্ষ মোঃ রাকিব উদ্দিন, বাকসু‘র সাবেক ভিপি ও শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম কলেজের অধ্যক্ষ ড. এ.কে.এম আবদুর রফিক ও বাকসু‘র সাবেক ভিপি মোঃ আব্দুস সালাম, বা.কৃ,বি‘র অতিরিক্ত রেজিস্টার মোঃ ওয়ালিউল্লাহ।

নির্বাচিত অফিসার পরিষদের অভিষিক্ত কর্মকর্তা হচ্ছেন সভাপতি মোঃ খাইরুল আলম নান্নু,সহ-সভাপতি প্রকৌশলী মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান,সাধারণ সম্পাদক মোঃ আসাদুজ্জামান আসাদ,যুগ্ন-সম্পাদক মোঃ কাজি নূরে নবী শিপ্লু, কোষাধ্যক্ষ একেএম মানসুরুল ফেরদৌস,দপ্তর ও প্রচার সম্পাদক প্রকৌশলী আসিফ মাহমুদ, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক মোঃ আলম শেখ, সমাজ কল্যাণ ও ক্রীড়া সম্পাদক মোঃ দেলুয়ার হোসেন,মহিলা সম্পাদিকা কৃষিবিদ জেসমিন খান, সদস্য যথাক্রমে কৃষিবিদ ড. মোঃ জহিরুল আলম, প্রকৌশলী মোঃ হুমায়ন কবীর, কৃষিবিদ মোঃ জহুরুল ইসলাম, সৈয়দ আমান-উদ-দৌলা খান, মোঃ আব্দুল মান্নান ও মোঃ এমদাদুল হক।

অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনা করেন বা.কৃ.বি‘র ডেপুটি রেজিষ্টার জেসমিন খান ও সহকারি রেজিস্টার মনোয়ার সোহেল। সংবর্ধিত নেতৃবৃন্দের পক্ষে অনুভূতি ব্যক্ত করে বক্তব্য রাখেন নব-নির্বাচিত কমিটির সভাপতি খায়রুল আলম নান্নু ও সাধারণ সম্পাদক মোঃ আসাদুজ্জামান আসাদ।

প্রধান অতিথি তিনি তার বক্তব্যে বলেন, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় একটি ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। শিক্ষক-কর্মকর্তা ও কর্মচারি সবাই মিলে বিশ্ব বিদ্যালয়কে এগিয়ে নেওয়ার জন্য এক সাথে কাজ করতে হবে।

ভিসি তার বক্তব্যে বলেন, বঙ্গবন্ধুকে বাকৃবি ডক্টর অব লিটারেচার সম্মানে ভুষিত করা হবে। প্রধান মন্ত্রীকে বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে। দেশ-বিদেশ থেকে বিভিন্ন জনকে আমন্ত্রন জানানো হবে। মুজিববর্ষে ৫/৬ হাজার লোকদের দাওয়াত দেওয়া হবে। অনুষ্ঠানটি সফল করার জন্য সকলকেই আন্তরিকতার সাথে কাজ করতে হবে।

 

ব্রেকিং নিউজঃ