| |

ভেজাল ও মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ বিক্রয়ের দায়ে জরিমানা ও কারাদণ্ড প্রদান নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আরিফুল ইসলাম প্রিন্স মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন

আপডেটঃ 5:38 pm | May 09, 2020

Ad

ইব্রাহিম মুকুট,  ঃ বিশ্ববাসী যখন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও আতঙ্কিত এবং লকডাউনের মানুুষ ঘর হতে বের হতে পারছেনা ঠিক এই সময়ে নিজেদের জীবনের ঝুকি নিয়ে মাঠে কাজ করছে জেলাপ্রশাসন। সামাজিক নিরাপদ দূরুত্ব বজায় রাখার নির্দেশনার পাশাপাশি সচেতনতা বাড়াতে ও ভেজালের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত রাখতে আজ শুক্রবার ০৮ মে ২০২০ ইং বিকেল ০৩.০০ ঘটিকা থেকে সন্ধ্যা ০৬:০০ ঘটিকা পর্যন্ত চড়পাড়া, ভাটিকাশর এলাকায় র্যাব-১৪ ও ড্রাগ ইন্সপেক্টর, ময়মনসিংহ এর সহযোগিতায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হয়। মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ আরিফুল ইসলাম প্রিন্স। চরপাড়া এলাকায় ভেজাল, মেয়াদ উত্তীর্ণ, বিক্রয় অযোগ্য ঔষধ মজুদ ও বিক্রির অপরাধে “স্পর্শ ফার্মেসী ” এর মালিক কে ঔষধ আইন,১৯৪০ (The Drug Act,1940) অনুসারে ০৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড ও ৫০০০০ (পন্চাশ হাজার) টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে আরো ০৩ মাসের বিনাশ্রমে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়।উক্ত দোকানের মালিকের দেয়া তথ্য ও অন্যান্য তথ্য যাচাই করে এসব ভেজাল ঔষধ পাইকারি সরবরাহকারীদের বিরুদ্ধে ভাটিকাশর এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হয়। এসময় দু জন ভেজাল ঔষধ সরবরাহকারীকে ০১ জনকে ঔষধ আইন,১৯৪০ (The Drug Act,1940) অনুসারে ০৯ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড ও ৫০০০০( পন্চাশ হাজার) টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে আরো ০৩ মাসের বিনাশ্রমে কারাদণ্ড এবং অন্যজনকে ০১ বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয়।এসব ভেজাল ঔষধ ড্রাগ ইন্সপেক্টর, ময়মনসিংহ এর জিম্মায় দিয়ে ধ্বংস করা হয়। ২টি মামলায় ৫০০০০(পন্চাশ হাজার টাকা আদায় ও তিন জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়।নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আরিফুল ইসলাম জানানা দূর্নীতি বাজ ও ভেজাল ঔষধ সরবরাহকারীদের বিরুদ্ধে এই অভিযান অব্যাহত থাকবে।

ব্রেকিং নিউজঃ