| |

যুব মহিলা লীগ ময়মনসিংহ জেলা শাখার অন্যতম কান্ডারী মাহমুদা হোসেন মলি রাতের অাধারে নিজ স্কুলের ছাত্রী ও অসহায়দের হাতে খাদ্যসামগ্রী উপহার তুলে দিলেন

আপডেটঃ ১১:৫৯ পূর্বাহ্ণ | মে ১৭, ২০২০

Ad
স্টাফ রিপোর্টার :বাংলাদেশ যুব মহিলা লীগ ময়মনসিংহ জেলা শাখার অন্যতম কান্ডারী ও ঐতিহ্যবাহী মুসলিম গার্লস উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের শিক্ষিকা মাহমুদা হোসেন মলি করোনাকালীন দুর্যোগে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অাহবানে উদ্ধুদ্ব হয়ে নিজের পরিবারের ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের সহযোগিতায় অাকস্মিক কর্মহীন অভাবগ্রস্থ পরিবার ও নিজ কর্মস্থলের অপেক্ষাকৃত দরিদ্র পরিবারের শিক্ষার্থীদের মাঝে গতকাল১৬-০৫-২০২০ শনিবার রাতের অাধারে খাদ্যউপহার ও নগদ অর্থ তুলে দেন।
সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে তার এক স্ট্যাটাসে তিনি বলেন,
করোনা ভাইরাসজনিত বৈশ্বিক মহামারীতে অাকস্মিক কর্মহীন সাময়িক অভাবগ্রস্থ পরিবারদের কষ্ট লাঘবে অামি ও অামার পরিবার করোনার প্রাদুর্ভাবের শুরু থেকেই খাদ্য উপহার ও অার্থিক সাহায্য করে অাসছি।
করোনা পরিস্থিতি পর্যায়ক্রমে ভয়াবহ মাত্রা ধারণ করলে সারাদেশের ন্যায় ময়মনসিংহও লকডাউনের কবলে পড়ায় মানুষের দুর্ভোগ বাড়ায় ও অধিকসংখ্যক মানুষ মানবিক বিপর্যয়ের সন্মুক্ষীন হওয়ায় মানবিক ও সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকেই অসহায় বিপদগ্রস্থ মানুষের জন্য কিছু করার মানসে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সহায়তার অাহবান জানাই শুভাকাঙ্খীদের।রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ থেকে শুরু করে জনপ্রতিনিধি সহ ভাই,বন্ধু,আত্মীয় পরিজন অনেকেই সহযোগিতার হাত বাড়ায়।নিজ পরিবারের ও শুভাকাঙ্ক্ষীদদের সহায়তায় অসহায় পরিবারগুলোর পাশে দাড়িয়ে তাদের মুখে হাসি ফুটানোর চেষ্টা করছি।আমার কয়েকজন ছাত্রী সহ মোট চল্লিশটি পরিবারে এই খাদ্য সামগ্রী দেয়া হয়।
কৃতজ্ঞচিত্তে স্মরণ করছি তাদের,যারা অামার অাহবানে সাড়া দিযে করোনাকালীন এই দুর্যোগে মানবতার হাত প্রসারিত করেছেন।
উল্লেখ্য করোনাকালীন সময়ের শুরু থেকেই জেলা যুব মহিলা লীগ নেত্রী ও মুসলিম গার্লস স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষিকা মাহমুদা হোসেন মলি তার নওমহলস্থ বাসার সামনে হাতধৌতকরণের ব্যবস্থাসহ এই করোনাকালীন মানবিক দুর্যোগে অসহায় কর্মহীন মানুষকে খাদ্যসামগ্রী-শাকসব্জি ও নগদ অর্থ প্রদান করে সহায়তা করে অাসছে।
2:32 AM

ব্রেকিং নিউজঃ