| |

ডেটিং-২০৪০

আপডেটঃ 1:46 pm | February 28, 2016

Ad

লাইফস্টাইল ডেস্ক : আমরা আজকাল অনেক বিষয়ের তথ্য ঘটনার বেশ আগেই পেয়ে যাচ্ছি। এটি আমাদের জীবনকে আরও সহজ ও সমৃদ্ধ করে তুলছে। আর এটা সম্ভব হচ্ছে তথ্যের অবাধ প্রবাহের জন্য। এই কৃতিত্বের বেশিরভাগই ইন্টারনেটকেই দিতে হবে।

প্রিয় মানুষের ভালোবাসা, সানিধ্য আমাদের জীবনে অতন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আগের দিনে দূরে থাকা প্রেমিকার একটি চিঠির জন্য একমাসের ‍অপেক্ষাও কোনো দূরত্ব তৈরি করতে পারেনি। আজ সেখানে, নিয়মিত দেখা না হলেও ফোনে কথা বলা, ভিডিও কলের মাধ্যমে স্থানের দূরত্ব অনেকটাই কেটে যায়। প্রযুক্তির কল্যাণেই এটা হচ্ছে। কিন্তু দিন তো এগিয়ে যাচ্ছে, সেই সঙ্গে পাল্লা দিয়ে প্রযুক্তি। তো জানতে ইচ্ছে করে ২০৪০ সালে মানুষের প্রিয় সঙ্গীটি কেমন হবে, তার সঙ্গে সম্পর্কটাই বা কীভাবে চলবে?

বিজনেস ইনসাইডার এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করেছে ২৫ বছর পরে ২০৪০ সালের ডেটিং যেমন হবে:

পাওয়া যাবে স্পর্শও!
কথা শোনা-বলা, ভিডিওতে দেখা-এগুলো তো এখনই আছে। তবে  ২০৪০ সালের ডেটিং হবে অন্য রকম, প্রযুক্তি এতোটাই উন্নত হবে যে দূরে থাকেলেও প্রিয় মানুষটির স্পর্শ এমন কি তার শরীরের গন্ধও অনূভব করা যাবে।

ট্যাটুতে ইমোশন
ভালোবাসা-অভিমান, সবই জানান দেবে শরীরে থাকা ট্যাটু। যেমন আপনি যখন ভালোবেসে প্রিয় সঙ্গীটির হাত ধরবেন, ট্যাটুও হয়তো তখন ভালোবাসার রং ছড়াবে।

অন্যজন রোবট সঙ্গী
আমরা অনেক আর্টিকেলে আজকাল দেখছি সেক্স ডল বাজারে ভালোই জায়গা করে নিচ্ছে। কিন্তু মানুষের পরিবর্তে প্রিয় সঙ্গীর জায়গায় আমরা দেখতে যাচ্ছি রোবটকে। এতে করে একটি রোবট ও একজন মানুষ নিয়েই হয়তো হবে দম্পতি।

লাইভ টিপস
অনেক সময়ই আমরা খেই ‍হারিয়ে ফেলি এই কথার কি উত্তরে কী বলা যায়… তবে ডেটিং হবে অনেক সহজ। কারণ কখন কি বলতে হবে, কোন ভিডিওটি শেয়ার করতে হবে সব পরামর্শই সরাসরি, তাৎক্ষণিকভাবে পাওয়া যাবে ‍আমাদের মস্তিস্কে।

নো ব্রেকআপ
একটি সুন্দর-সার্থক ও দীর্ঘস্থায়ী সম্পর্কই সবাই চাই। তবে এখনো আমরা সব বিষয়ে মিলে যায় এমন সঙ্গী পেতে বেশ হিমশিম খাই। কিন্তু সুসংবাদ হচ্ছে ২০৪০ সালে এমন সব প্রযুক্তি অপেক্ষা করছে যার মাধ্যমে সহজেই জেনে নেয়া যাবে…প্রিয় মানুষটির সঙ্গে মনের মিল,পছন্দ কখন ডেটিং, কবে বিয়ে, কয়টি বাচ্চা, কতো বছর স্থায়ী সম্পর্ক হবে…এমন গুরুত্বপূর্ণ সব তথ্য। আর এতে করে বিচ্ছেদের পরিমাণও কমে গিয়ে, গড়ে উঠবে সুখী-পরিবার-সুস্থ-সমৃদ্ধ সমাজ।

শহরের বাইরে
আগের দিনে প্রেম হতো পাশাপাশি বাড়ি, একই এলাকায়, এখন ফোন, ফেসবুকের দিনে ‍অন্য জেলায়ও হয়তো সম্পর্ক তৈরি হচ্ছে। তবে যেখানে সামনে না থাকলেও অনূভব করা যাবে স্পর্শ সেখানে থাকবে না কোনো সীমানার বন্ধন।

ভিন দেশের কেউ হয়তো আসবে প্রিয় মানুষটিকে সঙ্গী করে নিয়ে যেতে। তবে ২০৪০-ই হোক বা আরও অনেক অনেক পরে মানুষের প্রতি মানুষের আবেগ, ভালোবাসা, রাগ, অভিমান এগুলোর কখনোই পরিবর্তন হবে না, এর আবেদনকমবে না এতোটুকুও।

ব্রেকিং নিউজঃ