| |

সাধারন ছুটি ও লক ডাউন প্রত্যাহার। নিয়ম না মানলে চরম বিপর্যয়

আপডেটঃ 7:29 pm | June 01, 2020

Ad

প্রদীপ ভৌমিক :
সারা দেশ থেকে তূলে নেয়া হয়েছে লক ডাউন।খুলে দেওয়া হয়েছে অফিস,আদালত, দোকান পাট,বাজার, শপিং মল,চলবে বাস,লন্চ,ট্রেন, লন্চ, বিমান, সহ সব গন পরিবহন।সরকার বলছে জীবন, জীবিকা ও দেশের অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে স্বাস্হ্যবিধি মেনে সীমিত আকারে চালু করা হয়েছে সব। নির্দেশ জারি করা হয়েছে সামাজিক দুরত্ব রক্ষা করে যাত্রী পরিবহন , যাত্রী ও চালকদের মাক্স, গ্লাভস ব্যাবহার বাধ্যতামূলক এবং বাস,ট্রেনকে জীবানুমুক্ত করন সহ স্বাস্হ্য মন্ত্রকের নির্দেশ মেনে চলতে বলা হয়েছে।বাস,ট্রেন লন্চে ধারন ক্ষমতার অর্ধেক যাত্রী বহন করার সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়েছে।বাস ছাড়া অন্যান গন পরিবহনে ভাড়া বাড়ানো হয়নি। যাত্রীদের সামাজিক দুরত্ব বজায়,ব্যাক্তিগত সুরক্ষা ও জীবানু মুক্ত করন প্রক্রিয়া সমাপ্তের পর গনপরিবহনগুলি গন্তব্য দিকে যাত্রা শুরু করবে। মটর মালিক সমিতির নেতা এনায়েতুর রহমান বলেন দুরপাল্লার বাসগুলিতে নিয়ম মেনে চালানো সন্ভব হলেও রাজধানী ঢাকা সহ জনবহুল শহরগুলিতে চালানো সন্ভব নাও হতে পারে।নৌপরিবহন সমিতির নেতা খন্দকার মাহবুব উদ্দিন বীরবিক্রম বলেন আগামী ১৫ দিন এ ব্যাবস্হা পর্যবেক্ষন করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হবে।রেল মন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন বলেন স্বাস্হ্যবিধি মেনেই ট্রেন চালানো সন্ভব। এব্যাপার যাত্রীদের রেল মন্ত্রকে সার্বীক সহযোগিতা করতে হবে। রেল মন্ত্রী সন্তুষ্টি প্রকাশ করে বলেন যাত্রীদের সহযোগিতার ফলে স্বাস্হ্যবিভাগের নির্দেশ মোতাবেক ট্রেন চালানো সন্ভব হচ্ছে। বাস মালিক সমিতির আরেক নেতা মশিউর রহমান রাঙ্গার কন্ঠে অবশ্য হতাশার সুর। বাস ভাড়া ৬০% বাড়ানো হয়েছে যত্রী পরিবহন করা হবে অর্ধেক।করোনা পরিস্হিতিতে যাত্রী সল্পতা দেখা দিতে পারে। তাছাড়া চিকিৎসক,নার্স,স্বাস্হকর্মী পুলিশের মত বাসের চালক ও হেলপাররা যদি অধীকহারে করোনায় আক্রান্ত হয় তবে বাসচালানোর মত কর্মীর অভাব দিতে পারে।তখন গন পরিবহন বিপর্যয়ের মুখে পরতে পারে। ডাঃমোশতাক বলেন করোনা টেকনিকেল কমিটি অবশ্য এমুহুর্তে লক ডাউন ও গনপরিবহন চালুর পক্ষে নয় করোনা সক্রমন ও মূত্যুর হার আমাদের দেশে উর্দ্বমূখি। সরকার জীবিকা ও অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে সীমিত আকারে এই ব্যাবস্হা গ্রহন করেছে যদি করোনা সক্রমন এর ফলে ভয়াবহ আকার ধারন করে তাহলে লাভের চাইতে লোকসান বেশী হতে পারে।আমাদের দেশে জনগনের মাঝে গত দিন গুলিতে করোনা প্রতিরোধে স্বাস্হ্য বিভাগের নিয়ম না মেনে চলার প্রবনতা দেখা গেছে।আগামী দিনগুলিতে যদি এ অবস্হা চলে তাহলে আমাদের চরম বির্পযয়ের সন্মুখিন হতে হবে।

ব্রেকিং নিউজঃ