| |

ইতিহাসে স্বর্নাক্ষরে লিখা নাম মুছে ফেলার সাধ্য কারো নেই…ওবায়দুল কাদের

আপডেটঃ 3:50 am | March 18, 2016

Ad

ত্রিশাল প্রতিনিধি : সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি বলেছেন, ইতিহাসে যার নাম স্বর্নাক্ষরে লিখা রয়েছে তার মুছে ফেলার সাধ্য কারো নেই। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ছিলেন সততা আর আদর্শের প্রতিক। রাজনীতি একটা শিল্প, ভাষন একটা শিল্প, রাজনীতি ডিজিটাল হউক সমস্যা নেই। আচার ব্যবহার যেন এনালগ থাকে কারন সেখানে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ খুঁেজ পাওয়া যাবে। বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধরে রেখেছে তার মেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা  যিনি নীতি, উন্নয়ন আর সততার জন্য আজ ক্ষমতায় টিকে আছে। আমার নেত্রীর টার্গেট আগামী নির্বাচন নয়, আগামী প্রজন্ম। তিনি নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বলেন, আমি নিজেকে আওয়ামীলীগের একজন কর্মী ভাবি, মন্ত্রী ভাবি না। অন্তরে যার বঙ্গবন্ধু সে লোভী হতে পারে না। বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক হতে হলে তার জীবনী পড়তে হবে। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৬তম জন্মজয়ন্তী ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন।
গাহি সাম্যের গান মঞ্চে কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. মোহীত উল আলমের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ট্রেজারার প্রফেসর এ এম এম শামসুর রহমান, ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. সুব্রত কুমার দে, কলা অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মো. মাহবুব হোসেন, বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ সভাপতি সাব্বির আহমেদ ও সম্পাদক আপেল মাহমুদ প্রমূখ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন চারুকলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সিদ্ধার্থ দে। বঙ্গবন্ধুর উন্নয়ন দর্শন ও বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন প্রফেসর ড.মো. নজরুল ইসলাম ও প্রফেসর ড.বিজয় ভূষন দাস। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, জেলা আ’লীগের সাধারন সম্পাদক ও সাবেক এমপি আব্দুল মতিন সরকার, যুগ্ন-সাধারন সম্পাদক নবী নেওয়াজ সরকার ও পৌর মেয়র এবিএম আনিছুজ্জামান প্রমূখ।

ব্রেকিং নিউজঃ