| |

বাল্য বিবাহের হাত থেকে রক্ষা পেল নবম শ্রেণী স্কুল পড়ুয়া ছাত্রী

আপডেটঃ 3:46 pm | May 20, 2016

Ad

মো: সেলিম হোসাইন,ফুলবাড়ীয়া প্রতিনিধি:
ময়মনসিংহের ফুলবাড়ীয়া উপজেলার পৌরশহরের এক স্কুল পড়ুয়া ছাত্রী প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্য বিবাহের হাত থেকে রক্ষা পেল। বাল্য বিবাহ থেকে মুক্তি পাওয়া ঐ কিশোরী ফুলবাড়ীয়া উপজেলার হরেকৃষ্ণ উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী সামিয়া আফরিন (১৫)।
শুক্রবার উপজেলার পশ্চিম কালিবাজাইল গ্রামের আহমদ আলীর কন্যর সাথে পাশ্ববর্তি ইউনিয়নের বালাশ্বব গ্রামের বাছির উদ্দিনের পুত্র ফুলবাড়ীয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের ছাত্র আমিরুল ইসলাম মিন্টু সাথে আনষ্ঠানিক ভাবে বিয়ের আয়োজন করেন তাদের পরিবার।
পরে হরেকৃষ্ণ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও মেয়ের অভিভাবকরা সামিয়ার বয়স পূর্ণ না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দিবে না মর্মে লিখিত দিলে ফুলবাড়ীয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন সুলতানা স্কুল পড়ুয়া  মেয়েটিকে প্রধান শিক্ষকের জিম্মায় দেন এবং  অভিভাবককে জরিমানা করেন।
বাল্য বিবাহ বন্ধের বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে ফুলবাড়ীয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন সুলতানা জানান, ২০ মে শুক্রবার ফুলবাড়ীয়া উপজেলার হরেকৃষ্ণ উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী সামিয়া আফরিনের (১৫) বিবাহের দিন ধার্য্য হওয়ার পর সংবাদ পেয়ে তড়িৎভাবে পরিবারটির সাথে যোগাযোগ করতে পারায় বাল্যবিবাহটি বন্ধ সম্ভব হয়েছে।
তিনি আরো জানান, অনেকক্ষেত্রে তড়িৎভাবে পুলিশ প্রশাসনের সহযোগিতা নিয়ে বাল্যবিবাহ বন্ধের ব্যবস্থা নিতে হয়। এছাড়া উপজেলার মানুষ এখন অনেক সচেতন, তারপরও বিচ্ছিন্ন ভাবে কোথাও বাল্যবিবাহের আয়োজন হলে মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নিয়ে বিবাহ বন্ধ করা হয়।

ব্রেকিং নিউজঃ