| |

ক্লিনিকে রাজনৈতিক পোস্টার থাকলে ব্যবস্থা

আপডেটঃ 8:38 pm | July 25, 2016

Ad

ঢাকা : কমিউনিটি ক্লিনিকের দেয়ালে রাজনৈতিক পোস্টার পাওয়া গেলে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মোহাম্মদ নাসিম।

সোমবার বিকেলে রাজধানীর গুলশানের হোটেল ওয়েস্টিনের বলরুমে ‘ক্রিয়েটিভ মিডিয়া লিমিটেড’ আয়োজিত ‘কমিউনিটি ক্লিনিক বাঁচায় প্রাণ, শেখ হাসিনার অবদান’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

মোহাম্মদ নাসিম বলেন, ‘কমিউনিটি ক্লিনিকের দেয়ালে লাগানো সব ধরনের রাজনৈতিক পোস্টার তুলে ফেলাতে হবে। কমিউনিটি ক্লিনিকগুলোতে কোনো ধরনের রাজনৈতিক পোস্টার লাগানো যাবে না। যদি কোনো কমিউনিটি ক্লিনিকে রাজনৈতিক পোস্টার পাওয়া যায়, তবে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। কমিউনিটি ক্লিনিক ও হাসপাতাল পরিচ্ছন্ন রাখতে হবে। তাই এখানে অন্য কোনো ধরনের পোস্টারও লাগানো যাবে না।’

তিনি বলেন, ‘কমিউনিটি ক্লিনিক হলো প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এক অনন্য উদ্ভাবন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জনগণের দোরগোড়ায় স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেয়ার যে স্বপ্ন দেখেছিলেন কমিউনিটি ক্লিনিকের মাধ্যমে শেখ হাসিনা তা বাস্তবায়ন করেছেন। এর মাধ্যমে প্রত্যন্ত অঞ্চলের দরিদ্র মানুষ স্বাস্থ্যসেবা লাভের সুযোগ পায়।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘অত্যন্ত দুর্ভাগ্যের বিষয়, ২০০১ সালে বিএনপি-জামায়াত জোট ক্ষমতায় এসে কমিউনিটি ক্লিনিক কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়। কমিউনিটি ক্লিনিকের দালানগুলো পরিণত হয় গরু-ছাগল লালন কেন্দ্রে। গ্রামের গরীব দুঃখি মানুষ স্বাস্থ্যসুবিধা লাভের অধিকার থেকে বঞ্চিত হয়। মানুষের দুর্ভোগ বাড়ে। কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ করে বিএনপি জামায়াত প্রমাণ করেছে তারা জনগণের কল্যাণ চায় না, তারা গণবিরোধী।’

প্রধানমন্ত্রীর সাবেক স্বাস্থ্য উপদেষ্টা এবং কমিউনিটি ক্লিনিক ব্রান্ডিং কার্যক্রমের দলনেতা ডা. সৈয়দ মোদাচ্ছের আলীর সভাপতিত্বে এতে আরও বক্তব্য দেন- স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. দ্বীন মোহাম্মদ নূরুল হক, ক্রিয়েটিভ মিডিয়া লিমিটেডের চেয়ারম্যান সৈয়দ বোরহান কবীর, ক্রিয়েটিভ মিডিয়া লিমিটেডের প্রোগ্রাম ম্যানেজার অয়ন দেবনাথ প্রমুখ।

ব্রেকিং নিউজঃ