| |

ময়মনসিংহ মেতে উঠছে ফুটবল আনন্দে

আপডেটঃ 6:41 am | August 06, 2016

Ad

মো: মেরাজ উদ্দিন বাপ্পী:
ক্রিকেট ও ফুটবল এ জাতির ক্রীড়ামুখ। জাতীয় আনন্দেরও বড় উপলক্ষ। ‘এসো মাতি ফুটবল উৎসবে’ ময়মনসিংহের রফিক উদ্দিন ভূঁইয়া স্টেডিয়ামে টিকিট কাউন্টারের সামনে দর্শকের বিশাল লাইন। গুরুত্বপূর্ণ সড়কের মোড়ে মোড়ে যখন-তখন বসে যাচ্ছে ফুটবলের আন্ত আসরও। ফুটবলের নবজাগরণ ঘটাতে ময়মনসিংহনগরীতে হচ্ছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার ফুটবল লিগের (বিপিএল)। এমন একটি আসর গোটা ক্রীড়াঙ্গনকে উৎসাহ দিয়েছে।
ক্রিকেট উন্মাদনার রেশ এভাবে সারাদেশে ছড়িয়ে দেওয়ার পর এবার ফুটবল নিয়ে মেতেছে ময়মনসিংহ। মৃতপ্রায় ফুটবলকে জাগিয়ে তুলছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার ফুটবল লিগের (বিপিএল)।
ময়মনসিংহে শুক্রবার থেকে শুরু হয়েছে প্রিমিয়ার লিগের খেলা। জাতীয় পর্যায়ের কোনো ফুটবল প্রতিযোগিতা এবারই প্রথম এই শহরে। উদ্বোধনী ম্যাচ দেখতে যেন চোখে ঘুম ছিলনা ময়মনসিংহবাসীর। ধর্মমন্ত্রী প্রিন্সিপাল মতিউর রহমান ও ক্রীড়া উপমন্ত্রী আরিফ খান জয় থেকে শুরু করে অন্য অতিথিরাও যেন উন্মাতাল।
ক্রীড়াপ্রেমী ময়মনসিংহের দর্শকেরা সব ভুল প্রমাণ করে ছুটে এসেছে রফিক উদ্দিন ভূঁইয়া স্টেডিয়ামে। দর্শকদের অনেকের হাতে ভুভুজেলা। মুখে আঁকা বিপিএলের উলকি। কেউ আর্জেন্টিনা, কেউ ব্রাজিলের জার্সি গায়ে এসেছে। কারও হাতে আবার বাংলাদেশের পতাকা। মাথায় বাঁধা বাংলাদেশ লেখা হেডব্যান্ড। যেন এমন একটা উপলক্ষেরই অপেক্ষায় ছিল ময়মনসিংহবাসী। চট্রগ্রাম আবাহনী ও শেখ জামালের মধ্যকার উদ্বোধনী ম্যাচে দর্শকদের স্বতঃস্ফূর্ত উপস্থিতিই প্রমাণ করেছে এ অঞ্চলের মানুষ কতটা ফুটবলপ্রেমী।
স্টেডিয়ামের রূপ ও মানুষ আবারো স্টেডিয়ামমুখী হওয়ায় আশার আলো দেখছেন চট্রগ্রাম আবাহনী ও শেখ জামালের কোচ। এ দুই কোচ মনে করেন, দিনের চেয়ে এখানে রাতে ম্যাচ অনুষ্ঠিত হলে দর্শকরা আরো বেশি উপভোগ করতে পারতেন। এখানে দ্রুত ফ্লাডলাইটেরও ব্যবস্থা করার তাগিদ জানান তারা।
স্থানীয় দর্শকদের চাওয়া, এখন থেকে নিয়মিতই যেন এই স্টেডিয়ামে ফুটবলের আয়োজন করে বাফুফে। তাহলে হয়তো ময়মনসিংহের মতো সারা দেশেই জেগে উঠবে দর্শক। মেতে উঠবে ফুটবল আনন্দে।

ব্রেকিং নিউজঃ