| |

বীন ও গোয়ালা সম্প্রদায় তাদের ভোগ দখলকৃত ভুমি হতে উচ্ছেদ হলে অন্য কোথাও তাদের মাথা গোজার ঠাঁই মিলবে না : প্রদীপ ভৌমিক

আপডেটঃ 8:31 pm | October 03, 2016

Ad

মো: নাজমুল হুদা মানিক ॥ ময়মনসিংহের ফিরোজ জাহাঙ্গীর চত্তরে ৩ অক্টোবর সকাল ১১টায় বীন ও গোয়ালা সম্প্রদায়কে রা করার দাবীতে মানব বন্ধন করা হয়েছে। কোতোয়ালী থানার অর্ন্তগত খাগডহর ইউনিয়নের জেলখানার চর মৌজায় স্থায়ী ভাবে বসবাস করে বীন ও গোয়ালা সম্প্রদায়। ময়মনসিংহ দেশের অষ্টম বিভাগ হওয়ায় অধিগ্রহনের ফলে তাদের বসতবাড়ীর জমি আর থাকছেনা। প্রায় ২শত বছর পুর্ব হতে বীন ও গোয়ালা সম্প্রদায়ের ৩/৪ শত পরিবার এ এলাকায় বসবাস করত। উক্ত সম্প্রদায়কে রা করার জন্য ময়মনসিংহ মহানগর পুঁজা উদযাপন পরিষদ মানব বন্ধন ও মিছিল শেষে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করে। এসময় ময়মনসিংহ মহানগর পুঁজা উদযাপন পরিষদের আহবায়ক প্রদীপ ভৌমিক, যুগ্ন আহবায়ক সঞ্জিব সরকার সদস্য সচিব উত্ত চক্রবর্তী রকেট, সদস্য সুমন ভৌমিক, সঞ্জয় ঘোষ, রাজন বীন, দুলাল ঘোষ, সুবীর দত্ত, জিতেন বীন,  সুজন বীন, বুলবুল গোয়ালা, ফুলবাবু, পার্থ ঘোষ, পারভীন ঘোষ সহ গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। মানব বন্ধনে প্রধান বক্তা  ময়মনসিংহ মহানগর পুঁজা উদযাপন পরিষদের আহবায়ক প্রদীপ ভৌমিক বলেন, বীন ও গোয়ালা সম্প্রদায় তাদের ভোগ দখলকৃত ভুমি হতে উচ্ছেদ হলে অন্য কোথাও তাদের মাথা গোজার ঠাঁই মিলবে না। তিনি বলেন, বর্তমান শেখ হাসিনার সরকার সব সম্প্রদায়ের অধিকার নিশ্চিত করার জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। আমরা বিস্বাস করি বীন ও গোয়ালা সম্প্রদায়ের বসবাসের অধিকারকে নিশ্চিত করার জন্য সরকারের অনুসৃতনীতি অনুযায়ী তিনি আমাদের পাশে থাকবেন। তিনি আরো বলেন, আজকে আমরা সংখ্যলঘু সম্প্রদায় বীন ও গোয়ালা সম্প্রদায়ের প থেকে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করছি। প্রয়োজনে আমরা আমাদের নেত্রী জননেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে দেখা করে বাস্তব অবস্থা তোলে ধরব। ময়মনসিংহ মহানগর পুঁজা উদযাপন পরিষদের আহবায়ক সঞ্জিব সরকার বলেন, বীন সম্প্রদায়ের অধিকাংশ সদস্যই অসচ্ছল। তাদের ভুমি অধিগ্রহন করা হলে অন্য কোথাও বসবাস করার মত অবস্থা তাদের থাকবেনা। ময়মনসিংহ মহানগর পুঁজা উদযাপন পরিষদের সদস্য সচিব উত্তম চক্রবর্তী রকেট বলেন, বীন ও গোয়ালা সম্প্রদায়ের ভোগ দখলকৃত ভুমিতে ৩/৪শত বীন ও গোয়ালা পরিবার বাস করে। এদের ভুমি অধিগ্রহন করা হলে এরা ধবংস হয়ে যাবে।  এদের ন্যায় সংগত আন্দোলনের সাথে আমরা আছি এবং থাকব। মানব বন্ধন শেষে মিছিল করে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মরকলিপি প্রদান করা হয়।

ব্রেকিং নিউজঃ