| |

ময়মনসিংহ দি চেম্বার অব কমার্সের নেতৃবৃন্দদের সাথে কয়লা আমদানী কারক শ্রমিকদের মতবিনিময়

আপডেটঃ 7:43 am | October 17, 2016

Ad

মো: মেরাজ উদ্দিন বাপ্পী: ময়মনসিংহ দি চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রিজের নেতৃবৃন্দদের সাথে হালুয়াঘাট উপজেলার গোবড়াকুড়া কয়লা আমদানী কারক শ্রমিক সমিতির নেতৃবৃন্দদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
রবিবার (১৬ অক্টোবর) রাতে ময়মনসিংহ দি চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রিজ মিলনায়তনে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
মতবিনিময় সভায় ময়মনসিংহ দি চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রিজের সভাপতি আলহাজ্ব আমিনুল হক শামীম, ময়মনসিংহ মহানগর আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব এহতেশামুল আলম, পৌরসভার মেয়র মো: ইকরামুল হক টিটু, ময়মনসিংহ জেলা মটর মালিক সমিতির সভাপতি আলহাজ্ব মমতাজ উদ্দিন মন্তা, ময়মনসিংহ দি চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রিজের সাবেক পরিচালক প্রদীপ ভৌমিক, গোবড়াকুড়া কয়লা আমদানী কারক শ্রমিক সমিতির নেতা মো: জসিম উদ্দিন, মো: আবু হানিফ, আমদানী কারক সেলিম আহমেদ সহ শতাধিক শ্রমিক ও আমদানী কারকগন উপস্থিত ছিলেন।
মতবিনিময় সভায় ময়মনসিংহ দি চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রিজের সভাপতি আলহাজ্ব মো: আমিনুল হক শামীম বলেন, ব্যবসায়ীদের মধ্যে ঐক্য থাকতে হবে। সবাইকে সৎ ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করতে হবে। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ব্যবসায়ীদের সব সময় মুল্যায়ন করেছেন। ব্যবসার উন্নয়নে প্রধানমন্ত্রীর সব সময় সুদৃষ্টি রয়েছে।
তিনি বলেন, হালুয়াঘাটে ইমিগ্রেশন দ্রুত চালু হবে। নৌমন্ত্রীর সাথে এ ব্যাপারে কথা হয়েছে। ব্যবসায়ীরা যাতে ব্যবসায়ীক ভাবে ক্ষতিগ্রস্থ না হয় সে চেষ্টা করা হবে। তিনি বলেন, গোবড়াকুড়া এক নেতৃত্বেই থাকবে। প্রয়োজনে নির্বাচন হবে। সমিতিকে দুই ভাগে ভাগ করা যাবেনা।
সভায় অন্যান্ন নেতৃবৃন্দ বলেন, গোবড়াকুড়া এলাকায় ৬৪ জন আমদানী কারক থাকলেও আমদানী কারক রয়েছে হাজারেরও অধিক। তারা বলেন, গোবড়াকুড়া ডিপুতে শ্রমিকদের উপর অত্যাচার ও নির্যাতন করছে। হালুয়াঘাট আমদানী ও রপ্তানী কারক গ্রুপ এর সদস্য হতে হলে ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দিতে হচ্ছে। ৫ হাজার টাকার রশিদ পাওয়া গেলেও ৪৫ হাজার টাকার কোন হদিস নেই। আমরা এটি হতে মুক্তি চাই।

ব্রেকিং নিউজঃ