| |

আরিফার খুনী রবিন গ্রেপ্তার

আপডেটঃ 8:26 pm | March 24, 2017

Ad

মোঃ রিয়াজুর রহমান লাভলু ঃ ঢাকায় যমুনা ব্যাংকের মার্কেটিং এক্সিকিউটিভ আরিফুন্নেছা আরিফার খুনী ফখরুল ইসলাম রবিন গোয়েন্দা পুলিশের হাতে ধরা পড়েছে। ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের একটি দল শুক্রবার ভোরে টাঙ্গাইলের ধনবাড়ী থেকে তাকে গ্রেপ্তার করেছে। ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত উপকমিশনার (দক্ষিণ) মো. শহিদুল্লাহ জানান, সেখান থেকে রবিনকে ঢাকায় নেয়া হচ্ছে। পরে তাকে আদালতে তোলা হবে।
আরিফাকে খুনের ঘটনায় রাজধানী ঢাকা ও জামালপুর জেলাসহ সারা দেশে প্রতিবাদের ঝড় উঠে। ঢাকায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আরিফার সহকর্মী, সহপাঠী ও পরিবারের সদস্যরা মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে রবিনের গ্রেপ্তার ও ফাঁসির দাবি জানায়। নৃশংস এই খুনের ঘটনায় জামালপুর সচেতন সমাজের ব্যানারে জামালপুর শহরের দয়াময়ী মোড়ে এবং জামালপুর সরকারি জাহেদা সফির মহিলা কলেজের ছাত্রীরা কলেজের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে খুনী রবিনকে অবিলম্বে গ্রেপ্তার করে তার ফাঁসির দাবি জানায়।
জানা গেছে, গত ১৬ মার্চ সকালে কর্মস্থলে যাওয়ার জন্য ঢাকার সেন্ট্রাল রোডের আইডিয়াল কলেজ এলাকার বাসা থেকে বের হওয়ার সময় আরিফাকে কুপিয়ে জখম করা হয়। তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে সেখানে বেলা ১২টার দিকে মারা যান আরিফা। ওইদিন রাতেই আরিফার ভাই আব্দুল্লাহ আল আমিন বুলবুল ঢাকায় কলাবাগান থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। সেখানে আসামি করা হয় আরিফার সাবেক স্বামী ফখরুল ইসলাম রবিনকে। আরিফা ও রবিন উভয়ের বাসা জামালপুর শহরে।
মামলা দায়েরের পর পুলিশ আরিফার বাসার পাশের একটি বাড়ির সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করে। রবিনই যে ওই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছেন, সে বিষয়ে ওই ভিডিও দেখে ‘অনেকটাই নিশ্চিত’ হওয়া গেছে বলে পুলিশ কর্মকর্তারা জানিয়েছেন। ভিডিওতে প্রথমে আরিফাকে বাড়ির ফটক দিয়ে বের হতে দেখা যায়। কিন্তু কিছুক্ষণ পরই রবিনসহ তিনি আবার ভেতরে ঢোকেন। তখন দুজনের হাতেই ব্যাগ ছিল। বাসায় ঢোকার কয়েক মিনিট পরই রবিনকে দৌঁড়ে বের হতে দেখা যায়। পাঁচতলা ভবনের নিচতলায় থাকতেন আরিফা। নিচতলার সিঁড়িঘরে আরিফাকে কোপানো হয়।
উন্নয়ন সংঘের মানব সম্পদ বিভাগের পরিচালক ও মানবাধিকার কর্মী জাহাঙ্গীর সেলিম বলেন, খুনী রবিন গ্রেপ্তার হওয়ায় আমাদের আন্দোলন একধাপ সফল হলো। এখন চাই দ্রুত বিচারের মাধ্যমে খুনির দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি। এতে আরিফার আত্মা শান্তি পাবে। পুলিশের প্রতি কৃতজ্ঞতা। তারা দ্রুত সময়ের মধ্যে খুনীকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়েছে।

ব্রেকিং নিউজঃ