| |

ওয়াটার হিটার থেকে বাংলাদেশ ব্যাংকে আগুন : ফায়ার সার্ভিস

আপডেটঃ 4:16 pm | March 25, 2017

Ad

চায়ের ইলেক্ট্রিক কেটলি (ওয়াটার হিটার) থেকে বাংলাদেশ ব্যাংক ভবনে অগ্নিকাণ্ড ঘটেছে বলে জানিয়েছেন ফায়ার সার্ভিস কর্তৃক গঠিত তদন্ত কমিটির প্রধান ঢাকা বিভাগের ডেপুটি ডিরেক্টর সমরেন্দ্রনাথ বিশ্বাস।

শনিবার বাংলাদেশ ব্যাংকের আগুন লাগার স্থান পরিদর্শন করে এ তথ্য জানান তিনি।

সমরেন্দ্রনাথ বিশ্বাস বলেন, চায়ের ইলেক্ট্রিক কেটলির শর্ট সার্কিট থেকেই আগুনের সূত্রপাত হয়। এতে ওই কক্ষে থাকা কয়েকটি চেয়ার-টেবিল পুড়ে গেছে। তবে কোনো গুরুত্বপূর্ণ নথি, কম্পিউটার, কাগজ ও ফাইলের ক্ষতি হয়নি।

তিনি বলেন, গতকালই আমরা তথ্য নিয়েছি। আজ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলাম। মহাব্যবস্থাপকের (জিএম) পিএসের কক্ষের কেটলিতে শর্ট সার্কিট থেকে আগুন লাগে। আজ প্রত্যক্ষদর্শীদের সঙ্গে কথা হয়েছে। সোমবার অফিস খুলবে। আমরা বিভাগের সবার সঙ্গে কথা বলবো। এরপরই চূড়ান্ত প্রতিবেদন তৈরি করে সংশ্লিষ্টদের কাছে পাঠানো হবে। আশা করছি পাঁচ কার্যদিবসের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দিতে পারবো।

উল্লেখ, বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে বাংলাদেশ ব্যাংকের ৩০তলা ভবনের ১৪ তলায় বৈদেশিক মুদ্রা নীতি বিভাগে অগ্নিকাণ্ড ঘটে। পরে ফায়ার সার্ভিসের ১৩টি ইউনিট ঘণ্টাব্যাপী চেষ্টা চালিয়ে রাত সাড়ে ১০টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

অগ্নিকাণ্ডের খবর পেয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত, বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির, ডেপুটি গভর্নর আবু হেনা মোহা. রাজী হাসান ও এস কে সুর চৌধুরী ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

এ ঘটনায় আগুনের কারণ অনুসন্ধান ও ক্ষয়ক্ষতি নিরূপণে বাংলাদেশ ব্যাংক ও ফায়ার সার্ভিসের পক্ষ থেকে দুটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়।

বাংলাদেশ ব্যাংকের পক্ষ থেকে তিন সদস্যের এবং ফায়ার সার্ভিস কর্তৃক পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। বাংলাদেশ ব্যাংকের তদন্ত কমিটিকে আগামী ২৮ মার্চ ও ফায়ার সার্ভিসের কমিটিকে পাঁচ কার্যদিবসের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে।

ব্রেকিং নিউজঃ