| |

চৈত্র্য সংক্রান্তি

আপডেটঃ 3:52 pm | April 17, 2021

Ad

প্রদীপ ভৌমিক ॥ বাংলা বছরের শেষ দিনকে (ইংরেজী ১৩ এপ্রিল) চৈত্র সংক্রান্তি বলা হয়। চৈত্র সংক্রান্তির পরিসমাপ্তির মধ্য দিয়ে নতুন বছরের সূচনা হয়।চৈত্র থেকে বর্ষার পূর্ব পর্যন্ত যখন সূর্যের প্রচণ্ড উত্তাপ থাকে তখন তেজ প্রশমন ও বৃষ্টি লাভের আশায় কৃষিজীবী সমাজ বহু অতীত থেকে চৈত্র সংক্রান্তি পালন করছে।মুসলিম সমাজ মেঘ বৃষ্টির জন্য নফল নামাজ পড়ে রবের নিকটে দোয়া করে।সনাতন (হিন্দু) ধর্মানুসারী গন এই দিনে স্নান, দান, ব্রত, উপবাস প্রভৃতিকে পুণ্যকর্ম বলে মনে করে। চৈত্র সংক্রান্তিতে হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রধান উৎসব চড়ক। এইদিনে দেশের প্রায় সর্বত্র চড়ক মেলার আয়োজন করা হয়।কিন্তু করোনার কারণে এবার তেমন কিছুই হচ্ছে না। গত বছরের মতো এবারও করোনার কারণে মানুষের জীবন ও জীবিকা হুমকির মুখে। তাই পুরোনো বছরকে ঘটা করে বিদায় জানানো যাচ্ছে না। তবে ঘরে বসেই পুরোনো বছরকে বিদায় জানাচ্ছে বাঙালি। পুরোনো বছরের জরাজীর্ণতার সঙ্গে ধংস হোক নিপাত যাক মহামারির ঘাতক ভাইরাস করোনা, এই প্রত্যাশা সহ গত বছরের সকল প্রকার ভুলত্রুটির জন্য সকলের নিকরে ক্ষমা চেয়ে বিদায় জানাচ্ছি ১৪২৭ বাংলা সনকে।বিদায় চৈত্র সংক্রান্তি, বিদায় ১৪২৭।

ব্রেকিং নিউজঃ