| |

ডলারকে টেক্কা দিতে চীন-রাশিয়ার চুক্তি

আপডেটঃ 3:11 pm | February 07, 2017

Ad

অনলাইন ডেস্ক : আন্তর্জাতিক লেনদেনে মুদ্রা হিসেবে হিসেবে দীর্ঘ সময় ধরে আধিপত্য করছে মার্কিন ডলার। এবার এই মুদ্রার একক আধিপত্য খর্ব করতে একজোট দুই প্রভাবশারী বিশ্ব পরাশক্তি চীন ও রাশিয়া। সম্প্রতি তারা যে পদক্ষেপ নিয়েছে, তা ছোট পরিসরে হলেও গুরুত্বপূর্ণ।

বর্তমানে চীন সফরে আছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। মঙ্গলবার চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং ও রাশিয়ার প্রেসিডেন্টের উপস্থিতিতে একটি চুক্তি সাক্ষরিত হয়। এই চুক্তিটি হয় ব্যাংক অব চায়না ও রাশিয়ার দ্বিতীয় বৃহত্তম আর্থিক প্রতিষ্ঠান ভিটিবির সঙ্গে। খবর আলজাজিরার।

ভিটিবি রাশিয়া-আমেরিকা ছাড়াও ই্উরোপ, এশিয়া, আফ্রিকার বেশ কয়েকটি দেশের ব্যাংকিং সেবা দিয়ে থাকে।

নিজেদের মুদ্রার মান অক্ষুণ্ণ রেখে ডলারকে অতিক্রম করে যেতেই ভিটিবি ও ব্যাংক অব চায়নার মধ্যকার এই চুক্তি। চুক্তি স্বাক্ষরিত হওয়ার পর পুতিন বলেন, ‘ঐতিহাসিক লক্ষ্যমাত্রায় পৌঁছাতে আমরা বেশ বড় একটি পদক্ষেপ নিয়েছি। ‘ চীন ও রাশিয়ার মধ্যকার বাণিজ্য ১০০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার ছাড়িয়ে গেছে। বক্তব্যে পুতিন সেটিও বেশ গুরুত্বের সঙ্গে উল্লেখ করেন।

ডলার নিরাপদ ও নির্ভরযোগ্য মুদ্রা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হওয়ার আমেরিকা ইচ্ছেমতো নগদ অর্থ ধার দিতে পারতো এবং ইচ্ছেমতো খরচ করতে পারতো। আর এর মাধ্যমে বিশ্ব রাজনীতিতে প্রভাব বিস্তার করতো আমেরিকা। ব্রাজিল, রাশিয়া, ভারত, চীন ও দক্ষিণ আফ্রিকার সমন্বয়ে গঠিত অর্থনৈতিক জোট ব্রিকস ডলারের ওপর এই নির্ভরশীলতা কাটিয়ে ওঠতে আগে থেকেই প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়।

ডলারের ওপর আধিপত্য কাটিয়ে ওঠার মাধ্যমে বিশ্ব অর্থনীতি ও ভূ-রাজনীতির কাঠামোয় পরিবর্তন আনতে চায় ব্রিকস অন্তুর্ভূক্ত দেশগুলো। কিন্তু ডলারের বিকল্প কিছু প্রতিষ্ঠা করা ছাড়া সেটা সম্ভব হচ্ছিল না। বিষয়টি অনুধাবন করেই এই চুক্তি সম্পাদন করা হয়েছে বলে ধারনা করা হচ্ছে।

ব্রেকিং নিউজঃ