| |

শেরপুরের ঝিনাইগাতীর ঐহিত্যবাহী মহারশী নদীর নাব্যতা হারিয়ে, প্রায় বিলিনের পথে

আপডেটঃ 7:20 pm | February 27, 2017

Ad

মো. জয়নাল আবদিন, শেরপুর ঝিনাইগাতী প্রতিনিধিশেরপুর জেলার ঝিনাইগাতী উপজেলার মহারশী নদীর পার্শ্বেই গড়ে উঠে ঝিনাইগাতীর ঐহিত্যবাহী বড় বাজার এই নদী দিয়ে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে নানা জাতের পন্য আমদানীরপ্তানী হতো এই বাজার থেকে শেরপুর জেলার সীমান্তবর্তী এই ঝিনাইগাতী বাজারটি মহারশী নদীর জন্যই আমদানীরপ্তানী ব্যাপক প্রসরতা লাভ করে এই ঐতিহাসিক ঝিনাইগাতী বড় বাজার শেরপুর জেলার মধ্যে সবচেয়ে বড় বাজার হিসেবে সুপরিচিত ছিল সরকারী রাজস্ব আয়ের দিকেও শেরপুর জেলার মধ্যে সবার শীর্ষস্থানে ছিল কিন্তু মহারশী নদীটি নাব্যতা হারিয়ে দিন দিন শুকিয়ে খালে পরিণত হচ্ছে এই সুবাদে দখলদাররা মহারশীর জেগে উঠা চরগুলি বেদখল করছে যে কারণে দিন দিন মহারশী নদীটি বিলীন হতে চলেছে উল্লেখ্য, উক্ত মহারশী নদীর পানি দিয়ে দুপাশের কৃষকরা বোরো ফসলসহ নানা জাতের সবজি চাষাবাদ করত এছাড়াও নদীর পানি দিয়ে বাজারের সকল কাজের পানির সমস্যাগুলি সমাধান করত কৃষকের গবাদি পশু, কাপড় ধুয়া থেকে শুরু করে হাড়িপাতিল ধোয়ার কাজ করত কিন্তু বর্তমানে নদীটির পানি শুন্যতা বেদখল এর কারণে ঐহিত্যবাহী মহারশী নদীটি এখন বিলীন হতে চলেছে উক্ত নদীটির পূন: খননের মাধ্যমে এবং দখলদারদের উচ্ছেদ করে নদীটির পূর্ণ যৌবন ফিরিয়ে আনা দরকার বলে অত্র উপজেলাবাসী দাবী জানান প্রকাশ থাকে যে, প্রাকৃতিক ভারসাম্য রক্ষার জন্যও জলধারা প্রবাহমান রাখা অত্যান্ত জরুরী বলে পরিবেশবিদরা মনে করেন উক্ত নদীটি পূন: খনন হলে একদিনে যেমন নদীটি ফিরে পাবে প্রাণ, তেমনি মাছের উৎপাদনসহ অত্র বাজারবাসীর সুবিধাসহ হাজার হাজার কৃষকরা উপকৃত হবে মহারশী নদী পানি দিয়ে উৎপাদন হবে নানা জাতের কৃষিপণ্য

ব্রেকিং নিউজঃ