| |

ত্রিশালে তিন শতাধিক লাইসেন্স বিহীন ফার্মেসী সরকার রাজস্ব বঞ্চিত

আপডেটঃ 12:05 am | March 14, 2017

Ad

ত্রিশাল প্রতিনিধি ॥ ময়মনসিংহের ত্রিশালে উপজেলা সদর সহ ১২ টি ইউনিয়নে প্রায় তিন শতাধিক ঔষধের ফার্মেসী রয়েছে। এরমধ্যে আট দশটি ফার্মেসীর ড্রাগ লাইসেন্স থাকলেও বাকি সবগুলোই চলছে লাইসেন্স ছাড়া। প্রশাসনের উদাসীনতার ফলে রাজস্ব আয় থেকে বঞ্চিত হচ্ছে সরকার। খোজঁ নিয়ে জানা গেছে, উপজেলা সদর সহ ১২ টি ইউনিয়নে তিনশ’রও বেশি ঔষধের ফার্মেসীর মধ্যে আট দশটি ফার্মেসীর ড্রাগ লাইসেন্স থাকলেও বাকি সবগুলোই চলছে লাইসেন্স ছাড়া। লাইসেন্স বিহীন এসব অবৈধ ফার্মেসীতে মেয়াদ উত্তীর্ন ও যৌন উত্তেজক ট্যাবলেট, সরকার নিষিদ্ধ বিদেশী ঔষধ সহ নামে বেনামে অনুমোদনহীন বিক্রয় নিষিদ্ধ কোম্পানির ঔষধও বিক্রি করা হচ্ছে বলে গোপন সূত্রে জানা যায়। খোজ নিয়ে দেখা যায় একই ফার্মেসীতে এলোপ্যাথি, হোমিও প্যাথি, আয়ুর্বেদিক ও ভেটেনারী ঔষধ বিক্রি করতে। সংশ্লিষ্টদের নজরদারী না থাকায় দিনদিন বেড়েই চলেছে লাইসেন্স বিহীন ঔষধের দোকানের সংখ্যা। এতে বৈধ লাইসেন্সধারীরা লাইসেন্স নবায়ন ও নতুনরা লাইসেন্স করতে আগ্রহ হারাচ্ছেন। স্থানীয় সচেতন মহল মনে করছেন প্রশাসনের উদাসিনতার ফলে মোটা অংকের রাজস্ব আয় থেকে বঞ্চিত হচ্ছে সরকার। পৌরশহরের থানা রোড এলাকার জোবেদা ফার্মেসীর মালিক আব্দুর রশীদ বলেন, সংশ্লিষ্টদের নজরদারী না থাকলে নতুনরা লাইসেন্স সংগ্রহ করতে আগ্রহ হারাবে। ইউএনও আবু জাফর রিপন জানান, এ ব্যাপারে আমাদের অভিযান অব্যাহত থাকবে। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্শন করব যাতে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহন করে।

ব্রেকিং নিউজঃ